June 3, 2020, 6:31 am

News Headline :
১২৫৬ মুক্তিযোদ্ধাকে স্বীকৃতি দিয়ে গেজেট প্রকাশ মৃত্যুর হিসাবে ঢাকাকে পেছনে ফেলল চট্টগ্রাম গাবতলীতে র‌্যাব উদ্ধার করলো দেড় কেজি গাঁজা আটক-১ গাবতলীতে ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ অর্থ দিলেন সাবেক এমপি লালু প্রথমবারের মতো গাজীপুরে পিসিআর ল্যাব বসালেন সিটি মেয়র টঙ্গী থানা প্রেস ক্লাব সভাপতি’র মায়ের ইন্তেকাল গাজীপুরের গজারিয়াপাড়া হ’তে ডাকাত চক্রের ০২ জন গ্রেফতার সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জ উপজেলায় ধানের বাম্পার ফলন গাজীপুর মহানগরীর চান্দনা চৌরাস্তা এলাকা হতে ০১ জন ভন্ড কবিরাজ ধর্ষণকারীকে আটক করেছে র‌্যাব-১ করোনা’য় কর্মহীনদের মাঝে গাবতলী কাগইল ইউনিয়নে ত্রান সামগ্রী বিতরণ
ঢাকা-আগরতলা ফ্লাইট চাইলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী

ঢাকা-আগরতলা ফ্লাইট চাইলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী

Spread the love

নিজস্ব প্রতিনিধি

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার আগরতলা এবং ঢাকার মধ্যে সরাসরি ফ্লাইট চেয়েছে। যদিও এই দুই শহরের দূরত্ব মাত্র ১৩০ কিলোমিটার।

বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে এক অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে এই আর্জি জানান ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব।

এ বিষয়ে বিপ্লব দেব এক টুইটে বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার প্রস্তাবে উৎসাহ দেখিয়েছেন।

ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর অফিস থেকেও বিবিসির কাছে নিশ্চিত করা হয়েছে যে, মুখ্যমন্ত্রী দেব এবং শেখ হাসিনা আগরতলা-ঢাকা সরাসরি বিমান যোগাযোগের সম্ভাবনা নিয়ে কথা বলেছেন।

আগরতলা বিমানবন্দরটি বাংলাদেশের একবারে লাগোয়া। মাস দুয়েক আগে বাংলাদেশ এবং ভারতের বেশকিছু গণমাধ্যমে খবর বের হয় যে, ত্রিপুরা বিমানবন্দরের রানওয়ে সম্প্রসারণের জন্য বাংলাদেশের কাছে জমি চেয়েছে ভারত।

তবে আগস্ট মাসের মাঝামাঝি বাংলাদেশের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের কাছে বিষয়টি সম্পর্কে জানতে চাওয়া হলে, তিনি জমি চাওয়ার খবর নাকচ করে দেন। তিনি বলেন, ‌ভারত আমাদের কাছে কোনো জমি চায়নি। যে খবরটি আপনারা জেনেছেন সেটা সম্পূর্ণ অসত্য।

শাহরিয়ার আলম তখন জানান, ভারত মূলত যেটা চেয়েছে, সেটা হচ্ছে ত্রিপুরা বিমানবন্দরের রানওয়েতে লাইটের কমপ্লিট ফেজ পূরণ করতে বাংলাদেশের অংশে কিছু লাইট বসাতে।

আগরতলা বিমানবন্দরের সম্প্রসারণ নিয়ে খবরাখবরের পর এখন ঢাকা-আগরতলা সরাসরি ফ্লাইট নিয়ে ত্রিপুরা সরকারের এই আগ্রহের কথা জানা গেলো।

দিল্লিতে বিবিসি বাংলার শুভজ্যোতি ঘোষ বলছেন, দিল্লিতে বাংলাদেশের হাই-কমিশন এবং ভারতীয় কর্মকর্তারা ইঙ্গিত দিয়েছেন, শনিবার শেখ হাসিনা এবং নরেন্দ্র মোদির বৈঠকের পর যৌথ ঘোষণায় ঢাকা এবং চট্টগ্রামের সঙ্গে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের রাজ্যগুলোর রাজধানীর সরাসরি বিমান যোগাযোগ স্থাপনের কথা থাকার সম্ভাবনা প্রবল।

এ সপ্তাহের গোড়ার দিকে দিল্লিতে বাংলাদেশের হাই-কমিশনার সৈয়দ মোয়াজ্জেম আলী বিবিসিকে বলেন, দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগ ব্যবস্থা বাড়ানোর চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে, এবং তারই অংশ হিসেবে উত্তর-পূর্ব ভারতের প্রধান শহরগুলোর সঙ্গে সরাসরি ফ্লাইটের বিষয়টিও বিবেচনা করা হচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 jonotarbangla.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com